বুধবার   ১৬ অক্টোবর ২০১৯   আশ্বিন ৩০ ১৪২৬   ১৬ সফর ১৪৪১

সোনারগাঁয়ে ভুল চিকিৎসায় প্রসূতির মৃত্যুর অভিযোগ

প্রকাশিত: ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

সোনারগাঁ (যুগের চিন্তা ২৪) : সোনারগাঁ উপজেলার মোগরাপাড়া চৌরাস্তা এলাকার কলেজ রোডে রয়েল স্পেশালাইজড হাসপাতালে ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় সুলতানা (২৫) নামের এক প্রসূতির মৃত্যুর অভিযোগ পাওয়া গেছে।


মঙ্গলবার (১৭ সেপ্টেম্বর) বিকালে প্রসূতি সুলতানাকে সিজার করতে হাসপাতালে ভর্তি করেন তার স্বজনরা। এসময় ডাক্তার ফারহানার ভুল অস্ত্রপচারে অতিরিক্ত রক্ষক্ষরণের কারণে বুধবার (১৮ সেপ্টেম্বর) রাতে তার মৃত্যু হয় বলে পরিবারের অভিযোগ।


নিহতের স্বজনরা জানান, মঙ্গলবার (১৭ সেপ্টেম্বর) বিকালে সুলতানার প্রসব ব্যাথা উঠলে তার স্বামী মোহাম্মদ আলী উপজেলার মোগরাপাড়া চৌরাস্তা এলাকার কলেজ রোডে রশিদ প্লাজার ২য় তলায় রয়েল স্পেশালাইজড হোসপাতালে ভর্তি করান। সেখানে গাইনী ডাক্তার ফারহানা তার স্বামীকে বলেন সুলতানাকে দ্রুত সিজার করতে হবে নয়ত রোগীর সমস্যা হতে পারে। এ কথা শুনে সে ভয় পেয়ে ডাক্তার ফারহানা বলেন আলট্রাসনোগ্রাম ছাড়া কি তাকে সিজার করা যাবে? 


এমন প্রশ্নের জবাবে ডাক্তার ফারহানা জানান করা যাবে কোন সমস্যা হবে না। তখন ডাক্তার ফারহানা সুলতানাকে দ্রুত সিজার করতে অপারেশন থিয়েটারে নিয়ে যান। সন্ধ্যা ৬টার দিকে সুলতানা একটি পুত্র সন্তানের জম্ম দেয়। কিন্তু সিজার শেষে ডাক্তার জানান,  সুলতানার প্যালাসেন্টা কেটে গেছে। আলট্রসনোগ্রামের সময় এটি শিশুর নিচে না উপরে ছিল সেটি বুঝা যায়নি। তাই সিজার করার পর ব্লিডিং হচ্ছে। তার জন্য রক্ত লাগবে। 


এ সময় স্বজনরা ৩ ব্যাগ রক্ত তাৎক্ষনিক যোগার করেন। কিন্তু রক্ত দেয়ার পরও সুলতানার রক্তক্ষরণ বন্ধ না হলে ডাক্তার ফারহানা তাকে চিটাগাং রোড প্রো-একটিভ হাসপাতালে প্রেরণ করে। সেখানে ঘন্টা খানিক রাখার পর কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে স্কয়ার হাসপাতালে প্রেরণ করে। সেখানে ফের সুলতানাকে অপারেশন করা হলে ডাক্তার তাকে আইসিওতে রাখেন। পরে গতকাল রাত ১০টার দিকে সুলতানা মারা যান।


এ ব্যাপারে অভিযুক্ত ডাক্তার ফারহানার সাথে যোগাযোগ করা হলে তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোনটি বন্ধ পাওয়া যায়।


সোনারগাঁ স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা হালিমা সুলতানা জানান, এ ঘটনা শোনার পর আমি হাসপাতাল পরিদর্শন করে মৃত্যুর ঘটনা তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার জন্য নারায়ণগঞ্জ সিভিল সার্জেন অফিসে রির্পোট পাঠিয়েছি। রির্পোট আসলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।


এ ব্যাপারে সোনারগাঁ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জানান, হাসপাতালের ব্যাপারগুলো নারায়ণগঞ্জ সিভিল সার্জেন দেখেন। পর পর দুটি মাতৃ মৃত্যুর ঘটনা দুঃখজনক উল্লেখ করে তিনি জানান সিভিল সার্জেন রোগী মৃত্যুর ঘটনায় উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তাকে প্রধান করে একটি তদন্ত কমিটি করে দিয়েছেন। রির্পোট পেলেই এসব হাসপাতালগুলির বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এই বিভাগের আরো খবর