বুধবার   ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২৪   ফাল্গুন ৮ ১৪৩০

না.গঞ্জে লাইসেন্সবিহীন ১৬টি হাসপাতাল-ক্লিনিক বন্ধ

যুগের চিন্তা রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১৮ জানুয়ারি ২০২৪  

 

দ্বাদশ জাতীয় সাংসদ নির্বাচনের পর পরই সারাদেশে সকল ধরনের অবৈধ ক্লিনিক ডায়াগনস্টিক সেন্টার বন্ধের নির্দেশনা দিয়েছেন স্বাস্থ্য মন্ত্রী ডা.স্যামন্ত লাল সেন। আর এই নির্দেশনা না মানলে কঠোরভাবে ব্যবস্থা নেওয়ার হুশিয়ারি ও দিয়েছেন তিনি। সেই পরিপ্রেেিক্ষতেই নারায়ণঞ্জে দীর্ঘ নামে-বেনামে চলা বিভিন্ন ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারগুলোর বিরুদ্ধে অভিযান চালু করেছে নারায়ণগঞ্জ সিভিল সার্জন।

 

জানা গেছে, পুরো জেলায় কয়েকশত ক্লিনিক ডায়াগনস্টিক সেন্টার রয়েছে। যার মধ্যে সিভিল সার্জন লিস্ট অনুযায়ী ইতিমধ্যে ১৬টি ক্লিনিক লাইসেন্সবিহীন হওয়ায় তাদের কাছে বন্ধের নির্দেশ পাঠিয়ে দেওযা হয়েছে। আর তালিকার বাহিরে আরো বাকি যা রয়েছে তা ও শিঘ্রই লিস্ট হয়ে বন্ধ হওযার পথে।

 

বিগত দিনে দেখা গেছে, অভিযান হলে ও নানাভাবে লবিং করে আবারো সিভিল সার্জনের চোখে ফাঁকি দিয়ে খুলে ফেলা হতো কিন্তু এবার তার ভিন্ন রূপ থাকবে বলে হুশিয়ারি দিয়েছেন সিভিল সার্জন মশিউর রহমান। এই লাইসেন্সবিহীন ক্লিনিক ও হাসপাতালের কারণে বহু মানুষের প্রানসহ অনেকে হয়রানির শিকার ও হয়েছেন।

 

এদিকে জেলা স্বার্থ বিভাগের সূত্র মতে জানা গেছে, সারা জেলায় ২০০ টি হাসপাতাল-ক্লিনিক রয়েছে যার মধ্যে ইতিমধ্যে ১৬টি লাইসেন্সবিহীন পাওয়া গেছে। সেগুলো হলো, ১/ নারায়ণগঞ্জ চাষাড়া খানপুরের ইমন ডায়াগনস্টিক সেন্টার, ২/ নারায়ণগঞ্জ ডায়বেটিক হাসপাতাল (ইউনিট-২), নবাব সলিমুল্লাহ রোড ৩/নারায়ণগঞ্জ ডায়বেটিক হাসপাতাল, পশ্চিম দেওভোগ নাগবাড়ি ৪/ স্টাফ লাইফ হাসপাতাল চাষাড়া ৫/ আয়েশা জেনারেল হসপিটাল এন্ড ল্যাব খানপুর ৬/ রোগমুক্তি মেডিকেল সেন্টার ৭/ মনোরমা জেনারেল হাসপাতাল এন্ড অর্থোপেডিক সেন্টার, ৮/ এনসিসি, এসবিএফ কিডনি ডায়ালাইসিসি সেন্টার ৯/ ভূলতা এ্যাপোলো হাসপাতাল এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টার ১০/ মর্ডান ডিজিটাল ডায়াগনস্টিক সেন্টার, সোনারগাঁ ১১/ আল্টারনেটিভ মেডিকেল কেয়ার এন্ড হেলথ সার্ভিসেস, সোনারগাঁ ১২/ মক্কা ল্যাব এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টার, বরপা ১৩/ সোনারগাঁ ডায়াবেটিক হাসপাতাল ১৪/ সিপিএইচডি নারায়ণগঞ্জ হেলথ কেয়ার লি:, রূপগঞ্জ ১৫/ আড়াইহাজার ডায়াবেটিক হাসপাতাল ১৬/ পানাম নগর চক্ষু হাসপাতাল, সোনারগাঁ।

 

এ বিষয়ে সিভিল সার্জন মশিউর রহমান যুগের চিন্তাকে বলেন, আমরা বর্তমানে লাইসেন্সবিহীন ক্লিনিক, হাসপাতালগুলোর বিরুদ্ধে অভিযান অবহৃত রেখেছি। ইতিমধ্যে আমাদের হাতে নারায়ণগঞ্জের ১৬টি ছাড়পত্রবিহীন হাসপাতলের তালিকা এসেছে। সেই অনুযায়ী দ্রুত হাসপাতারগুলো বন্ধের নির্দেশ দিয়েছি। আমাদের এই চলমান অবহৃত থাকবে। এস.এ/জেসি
 

এই বিভাগের আরো খবর