শনিবার   ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯   অগ্রাহায়ণ ২৯ ১৪২৬   ১৬ রবিউস সানি ১৪৪১

চিত্রকর্ম : রঙিন ডাক বাক্স 

প্রকাশিত: ৩০ নভেম্বর ২০১৯  

ঐতিহাসিকভাবে চিঠির প্রচলন ছিল-প্রাচীন ভারত, প্রাচীন মিশর, সুমের, প্রাচীন রোম, মিশর এবং চীনে, চলছে এখনো।সতের ও আঠারো শতকে চিঠি লেখা হতো স্ব-শিক্ষার জন্য।

 

চিঠি ছিল পাঠচর্চা, অভিজ্ঞতা বর্ণনা করা, বিতর্কমূলক লেখা বা সমমনা অন্যদের সাথে আইডিয়া বিনিময়ের পদ্ধতি।কিছু লোক চিঠিকে মনে করতো কেবল লেখালেখি। আবার অন্যরা মনে করে যোগাযোগের মাধ্যম।


বাইবেলের বেশ কয়েকটি পরিচ্ছেদ চিঠিতে লেখা।ব্যক্তিগত, কূটনৈতিক বা বাণিজ্যিক-সবরকম চিঠিই পরবর্তীকালে ঐতিহাসিকগণ প্রাথমিক উৎস হিসেবে ব্যবহার করেন। কখনোবা চিঠি এতো শৈল্পিক রূপ পায় যে তা সাহিত্যের একটি বর্গ হয়ে ওঠে, যেমন বাইজেন্টাইনে এপিস্টোলোগ্রাফি বা সাহিত্যের পত্র উপন্যাস। 


এই শৈল্পিক রূপ যেন হারাতে বসেছে। আধুনিকতার ছোঁয়ায় যোগাযোগের মাধ্যম সহজ হয়েছে কিন্তু তার আবেগ, অনুভূতি হ্রাস পেয়েছে।


জাহিদ হৃদয়