উত্তপ্ত বাক্য বিনিময়ের পর শাস্তি পেলেন লিটন-কুমারা

প্রকাশিত: ১৭:৫৩, ২৫ অক্টোবর ২০২১

উত্তপ্ত বাক্য বিনিময়ের পর শাস্তি পেলেন লিটন-কুমারা

আইসিসির আচরণবিধি ভেঙে শাস্তি পেলেন লাহিরু কুমারা ও লিটন দাস। রবিবার দুই দলের দুই ক্রিকেটারের মধ্যে উত্তপ্ত বাক্য বিনিময় হয়েছিল। তখনই বোঝা গিয়েছিল দুজন আইসিসির আচরণবিধি লঙ্ঘন করেছেন। যার ফলে কুমারাকে ম্যাচ ফির ২৫ শতাংশ আর লিটনকে ১৫ শতাংশ জরিমানা করেছে আইসিসি।দুই ক্রিকেটারের বিরুদ্ধে অভিযোগ আনেন ফিল্ড আম্পায়ার জোয়েল উইলসন, আদ্রিয়ান হোল্ডস্টোক, থার্ড আম্পায়ার মাইকেল গফ ও ফোর্থ আম্পায়ার রড টাকার। তার পর আইসিসির এলিট প্যানেলের ম্যাচ রেফারি জাভাগাল শ্রীনাথ শাস্তির ঘোষণা দিয়েছেন। কুমারা ও লিটন অপরাধ স্বীকার করায় তাদের শুনানির প্রয়োজন হয়নি।

ঘটনাটি ছিল বাংলাদেশ ইনিংসের। লাহিরু কুমারা একটি বল ছুঁড়ে মেরেছিলেন নাঈম শেখের দিকে। মাথা নিচু করে নিজেকে রক্ষা করেন নাঈম। পরের ওভারে এসে লিটন দাসকে আউট করেন এই পেসার। তখনই পরিস্থিতি উত্তপ্ত হয়ে উঠে দুজনের বাক্যবিনিময়ে। লিটনের সঙ্গে কিছু একটা নিয়ে তর্কে জড়িয়েছিলেন কুমারা। পরিস্থিতি আরও জটিল হয়ে দাঁড়ায় যখন দুজন মুখোমুখি এসে দাঁড়িয়ে পড়েন। শেষমেশ শ্রীলঙ্কান ফিল্ডার ও নাঈমের মধ্যস্থতায় পরিস্থিতি ঠাণ্ডা হয়।

আচরণবিধি ভাঙায় জরিমানার সঙ্গে দুজনের নামের পাশে একটি করে ডিমেরিট পয়েন্টও যুক্ত হয়েছে। এই ধারা ভঙ্গের সর্বনিম্ন শাস্তি আনুষ্ঠানিক তিরস্কার এবং সর্বোচ্চ শাস্তি ম্যাচ ফির ৫০ শতাংশ জরিমানা। সঙ্গে একটি বা দুটি ডিমেরিট পয়েন্ট যুক্ত হবে।