এই সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়: মান্না

প্রকাশিত: ১৮:২৩, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১

আপডেট: ১৮:২৬, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১

এই সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়: মান্না

নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না বলেছেন, স্থানীয় সরকারের সবচেয়ে নিম্ন স্তর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দুই জন নিহত, অর্ধশতাধিক গুলিবিদ্ধ এবং শতাধিক আহত হওয়ার ঘটনা আরও একবার প্রমাণ করলো—এই সরকার ক্ষমতায় থাকা অবস্থায় কোনও সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়। বিরোধী দল নির্বাচনে না থাকার পরও সরকারি দল নিজেদের মধ্যেই সংঘর্ষে লিপ্ত হচ্ছে। মঙ্গলবার (২১ সেপ্টেম্বর) দলের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য সাকিব আনোয়ার স্বাক্ষরিত বিবৃতিতে তিনি এসব কথা বলেন। জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের এই শীর্ষনেতা বলেন, ‘বর্তমান ক্ষমতাসীনরা বিগত ১৩ বছরে দেশের নির্বাচন ব্যবস্থা সম্পূর্ণ ধ্বংস করে দিয়েছে। ২০১৮ সালের ৩০ ডিসেম্বরের জাতীয় নির্বাচনের ভোট আগের রাতে ডাকাতি করে ক্ষমতায় গিয়ে তারা নির্বাচন ব্যবস্থার কফিনে শেষ পেরেক ঠুকে দিয়েছে। বিরোধী দল অনুপস্থিত থাকার পরও ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনেও তাদের নিজেদের দলের ক্যাডাররা অস্ত্রের মহড়া দিচ্ছে। নিজেদের মধ্যে সংঘর্ষে মানুষ হত্যা করছে। এই সরকারের অধীনে কোনও সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়।’ নির্বাচন কমিশন সংস্কার প্রসঙ্গে মান্না বলেন, ‘এই সরকার ক্ষমতায় থাকলে দেশের কোনও সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠান তার দায়িত্ব পালন করতে পারবে না। সুতরাং নির্বাচন কমিশন সংস্কার করলেও সুষ্ঠু নির্বাচনের সম্ভাবনা নেই।’ অন্তর্বর্তীকালীন তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবি জানিয়ে ডাকসুর সাবেক এই ভিপি বলেন, ‘অবৈধ ক্ষমতাসীনদের বলছি, আপনারা এখনই পদত্যাগ করে একটি নিরপেক্ষ সরকারের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করুন। অন্যথায় দেশের জনগণ হারানো গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের জন্য জেগে উঠলে সেই স্রোতে ভেসে যাবেন।’