নোনাজলের কাব্য: জেলেরাই দেখলো সবার আগে

প্রকাশিত: ১৫:৫৪, ২৩ নভেম্বর ২০২১

নোনাজলের কাব্য: জেলেরাই দেখলো সবার আগে

সম্প্রতি আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবগুলোতে সাড়া জাগানো ছবি ‘নোনাজলের কাব্য’ আসছে দেশের পর্দায়।  আগামী ২৬ নভেম্বর মুক্তি পাচ্ছে এটি। ফ্রেশের টাইটেল পৃষ্ঠপোষকতায় সিনেমাটি পরিবেশনা করছে স্টার সিনেপ্লেক্স।  এদিকে, পটুয়াখালীর প্রত্যন্ত উপকূলীয় অঞ্চলের জেলেদের জীবনযাত্রা নিয়ে নির্মিত এই ছবিটি প্রেক্ষাগৃহে প্রদর্শনের আগেই দেখানো হলো সেই জেলার জেলে পরিবারদের। গত ২২ নভেম্বর পটুয়াখালীর জেলেপল্লী কুয়াকাটা পিকনিক স্পট, চর গঙ্গামতীর জেলে পরিবারের জন্য আয়োজনটি করা হয়।

নির্মাতা রেজওয়ান শাহরিয়ার সুমিত জানান, আয়োজনটি ঘিরে সেখানকার জেলেদের মধ্যে ছিল অন্যরকম এক উচ্ছ্বাস।ছবিটি দেখছে জেলে পরিবারগুলোছবিটি দেখছে জেলে পরিবারগুলো‘নোনাজলের কাব্য’ সুমিতের ​প্রথম সিনেমা। চলচ্চিত্রটির চিত্রনাট্য লেখা ও সরেজমিন গবেষণা চলে চার বছর ধরে। চিত্রনাট্যের জন্য এ ছবি পেয়েছিল ‘স্পাইক লি রাইটিং গ্রান্ট’। ২০১৮ সালের ১৩ জুলাই অর্ধশতাধিক শিল্পী ও কলাকুশলী মিলে পটুয়াখালী ও চট্টগ্রামে শুটিং শুরু হয়ে একই বছরের সেপ্টেম্বরের ৩ তারিখে শেষ হয়। ২০২০ সালে ‘নোনাজলের কাব্য’ পেয়েছিল টরিনো ফিল্ম ল্যাব অডিয়েন্স ডিজাইন ফান্ড-২০২০। ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের এ প্রকল্পের অধীনে এতে ৪৫ লাখ টাকা পেয়েছিল ছবিটি।চলচ্চিত্রটির একটি দৃশ্যচলচ্চিত্রটির একটি দৃশ্য

চলচ্চিত্রটি ‘২৫তম বুসান ইন্টারন্যাশনাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল’-এ এশিয়ান স্বল্পদৈর্ঘ্য প্রতিযোগিতা বিভাগে মনোনীতও হয়েছিল। এছাড়া বিশ্বের বিভিন্ন উৎসবে প্রশংসিত হয় সিনেমাটি। এতে অভিনয় করেছেন বাংলাদেশ জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত অভিনেতা তিতাস জিয়া ও ফজলুর রহমান বাবু। আরও আছেন তাসনুভা তামান্না, শতাব্দী ওয়াদুদ, অশোক ব্যাপারী, আমিনুর রহমান মুকুলসহ অনেকে। বাংলাদেশ-ফ্রান্স যৌথ প্রযোজনার ছবি এটি।আয়োজনে পরিচালকসহ জেলে পরিবারগুলোআয়োজনে পরিচালকসহ জেলে পরিবারগুলো