ভারত থেকে ফিরেছেন পাচার হওয়া ১৯ তরুণী

প্রকাশিত: ২২:১৮, ২১ অক্টোবর ২০২১

ভারত থেকে ফিরেছেন পাচার হওয়া ১৯ তরুণী

বিভিন্ন সময় ভারতে পাচার হওয়া ১৯ বাংলাদেশি তরুণী দেশে ফিরেছেন। বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) সন্ধ্যা ৭টার দিকে ভারতীয় ইমিগ্রেশন পুলিশ বেনাপোল চেকপোস্টের ইমিগ্রেশন পুলিশের কাছে তাদের হস্তান্তর করেন।

তাদের বয়স ১৬ থেকে ২৮ বছরের মধ্যে। তারা গত ২-৩ বছর আগে সীমান্ত পথে ভারতে পাচার হন। হস্তান্তরের সময় উপস্থিত ছিলেন- চেকপোস্ট ইমিগ্রেশন পুলিশের ওসি মোহাম্মদ রাজু আহমেদ, পোর্ট থানার ওসি মামুন খান ও আইসিপি বিজিবি কমান্ডার আশরাফ আলী।

তাদের মধ্যে যশোরের এনজিও সংস্থা জাস্টিস অ্যান্ড কেয়ার ১২, রাইটস যশোর ছয় ও যশোর মহিলা আইনজীবী সমিতি একজনকে গ্রহণ করেছে। এই তিন এনজিও সংস্থা ভুক্তভোগীদের পরিবারের কাছে হস্তান্তর করবে।

জাস্টিস অ্যান্ড কেয়ারের যশোর শাখার সিনিয়র প্রোগ্রাম অফিসার মুহিত হোসেন জানান, সংসারে অভাব-অনটনের সুযোগ নিয়ে বিভিন্ন সময় ভালো কাজের কথা বলে দালালরা তাদের ভারতে পাচার করে। পরে বিভিন্ন ঝুঁকিপূর্ণ কাজে তাদের ব্যবহার করে। ভারতীয় পুলিশ খবর পেয়ে পাচারকারীদের খপ্পর থেকে উদ্ধার করে তাদের আদালতে পাঠায়। সেখান থেকে তাদের আশ্রয় হয় ভারতীয় বিভিন্ন এনজিও সংস্থা দ্বারা পরিচালিত শেল্টার হোমে। পরে কলকাতায় নিযুক্ত বাংলাদেশ দূতাবাস তাদের দেশে ফেরাতে তৎপরতা শুরু করে। পরে দুই দেশের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের যোগাযোগে বিশেষ ট্রাভেল পারমিটে আজ তারা দেশে ফিরে আসে।

বেনাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশের ওসি রাজু আহমেদ বলেন, ‘সেখানে অবৈধভাবে বিভিন্ন বাসা-বাড়িতে কাজ করার সময় পুলিশ পাচার হওয়াদের আটক করে এবং আদালতে পাঠায়। সেখান থেকে পুনেতে অবস্থানরত রেসকিউ ফাউন্ডেশনসহ বিভিন্ন এনজিও সংস্থা তাদের ছাড়িয়ে নিজেদের হেফাজতে নেয় এবং বিভিন্ন শেল্টার হোমে রাখে। পরে তাদের সার্বিক সহযোগিতায় তাদের দেশে ফেরত পাঠিয়েছে ভারতীয় পুলিশ।’