কক্সবাজারে পর্যটককে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগ

প্রকাশিত: ১৫:৪৭, ২৩ ডিসেম্বর ২০২১

কক্সবাজারে পর্যটককে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগ

কক্সবাজারে স্বামী-সন্তান নিয়ে বেড়াতে এসে এক পর্যটক সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। স্বামী-সন্তানকে জিম্মি করে তিন যুবক তাকে ধর্ষণ করে বলে জানা গেছে। খবর পেয়ে র‌্যাব ঘটনাস্থল থেকে ওই নারীকে উদ্ধার করে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে পাঠায়। র‌্যাব-১৫-এর কমান্ডার মেজর মেহেদী হাসান জানান, বুধবার (২২ ডিসেম্বর) দিবাগত রাত ২টার দিকে কক্সবাজারের হোটেল-মোটেল জোনের জিয়া গেস্ট ইন নামে একটি হোটেল থেকে ওই পর্যটককে উদ্ধার করা হয়। ওই নারীর বরাত দিয়ে কক্সবাজার র‌্যাব-১৫-এর সিপিসি কমান্ডার মেজর মেহেদী হাসান বলেন, ‘গত মঙ্গলবার ঢাকা থেকে স্বামী-সন্তানসহ কক্সবাজার বেড়াতে আসেন ওই নারী পর্যটক। ওঠেন শহরের হলিডে মোড়ের একটি হোটেলে। সেখান থেকে বিকালে যান সৈকতের লাবণি পয়েন্টে। সেখানে অপরিচিত এক যুবকের সঙ্গে তার স্বামীর ধাক্কা লাগলে কথা কাটাকাটি হয়। এর জের ধরে সন্ধ্যার পর পর্যটন গলফ মাঠের সামনে থেকে তার আট মাসের সন্তান ও স্বামীকে সিএনজিচালিত অটোরিকশায় করে কয়েকজন তুলে নিয়ে যায়। এ সময় আরেকটি অটোরিকশায় তাকে তুলে নেয় তিন যুবক। পর্যটন গলফ মাঠের পেছনে একটি ঝুপড়ি চায়ের দোকানের পেছনে নিয়ে তাকে ধর্ষণ করে ওই যুবকরা। এর পর তাকে নেওয়া হয় জিয়া গেস্ট ইন নামে একটি হোটেলে। সেখানে আরেক দফা তাকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ করে ওই তিন যুবক। ঘটনা কাউকে জানালে সন্তান ও স্বামীকে হত্যা করা হবে জানিয়ে কক্ষ বাইরে থেকে বন্ধ করে ঘটনাস্থল ত্যাগ করে তারা।’ মেজর মেহেদী হাসান আরও বলেন, ‘খবর পেয়ে স্বামী-সন্তান ও ওই গৃহবধূকে উদ্ধার করি। তদন্ত শুরু করেছি। এখন পর্যন্ত তিন জনের মধ্যে দুজনকে শনাক্ত করেছি। তাদের ধরতে অভিযান চলছে। ধর্ষণের শিকার নারী পর্যটককে হাসপাতালের ওয়ান স্টম ক্রাইসিস কক্ষে পাঠানো হয়েছে।’ কক্সবাজার সদর মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) বিপুল চন্দ্র দে বলেন, ‘ঘটনার খবর পেয়ে অভিযুক্তদের ধরতে মাঠে নেমেছে পুলিশের একটি দল।’