শনিবার   ৩০ মে ২০২০   জ্যৈষ্ঠ ১৬ ১৪২৭   ০৭ শাওয়াল ১৪৪১

নতুন বছরে নতুন বই পেয়ে উচ্ছ্বাসিত শিক্ষার্থীরা

প্রকাশিত: ১ জানুয়ারি ২০২০  

স্টাফ রিপোর্টার (যুগের চিন্তা ২৪) : সকলের হাতে হাতে নতুন বই। নতুন বই হাতে নিয়ে কেউ ছুটছে বাড়ির দিকে কেউ আবার বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে বন্ধুদের সাথে বসে নতুন বই নেড়েচেড়ে দেখতে ব্যস্ত।

 

বছরের প্রথম দিনেই নতুন বই হাতে এভাবেই আনন্দে মেতে উঠে শিক্ষার্থীরা। নতুন বই হাতে পেয়ে উচ্ছা¡সিত নারায়ণগঞ্জ হাইস্কুল এন্ড কলেজের ৬ষ্ঠ শ্রেণির শিক্ষার্থী কাইয়ুম জানান, গতকাল পরীক্ষার রেজাল্ট দিয়েছে আর আজ বছরের প্রথম দিনেই নতুন বই। খুব আনন্দ লাগছে নতুন বই পেয়ে। নতুন বইয়ের ঘ্রাণটা আমার খুব ভালো লাগে।

 

নারায়ণগঞ্জ প্রিপারেটরী স্কুলে গিয়ে দেখা যায়,  নতুন বই হাতে নিয়ে বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে ছুটে বেড়াচ্ছে শিক্ষার্থীরা।নতুন বই হাতে পেয়েই বন্ধুদের সাথে বসে কবিতা পাঠ করছে সপ্তম শ্রেণির শিক্ষার্থী আবিদ মাহমুদ ও তার বন্ধুরা। আবিদ জানান, নতুন বই হাতে নিয়ে কবিতাগুলো পড়তে পছন্দ করি। প্রতিবারের মত এবারও আগেভাগে বাংলা বইয়ের গল্প আর কবিতাগুলো শেষ করবো।

 

নতুন হাতে পেয়ে উচ্ছ্বাসের দিক থেকে পিছিয়ে নেই ছয়বছরের পিয়েতারও। নারায়ণগঞ্জ আদর্শ স্কুলে এ বছর প্রথম শ্রেণিতে উঠেছে সে। তাই সবার মত মায়ের হাত ধরে বই নিতে এসেছে স্কুদে এ শিক্ষার্থী। এ দিকে বছরের প্রথম দিনে নতুন বই পেয়ে শিক্ষার্থীদের সাথে সাথে আনন্দিত অভিভাবকরাও।

 

বুধবার (১ জানুয়ারি) দিনব্যাপী  বিদ্যালয়গুলোতে বই উৎসবের মধ্যে দিয়ে শিক্ষার্থীদের মাঝে নতুন বই বিতরণ করা হয়। সকালে নারায়ণগঞ্জ হাইস্কুল এন্ড কলেজে বই বিতরণের মধ্যে দিয়ে নারায়ণগঞ্জে বই উৎসবের উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক। নতুন বছরের প্রথম দিনে নতুন বই হাতে পেয়ে আনন্দ উৎসবে মেতে উঠে শিক্ষার্থীরা। 

 

এ বছর নারায়ণগঞ্জে পাঁচ উপজেলার মাধ্যমিক, প্রাক-প্রাথমিক ও কিন্ডার গার্ডেনসহ সব সরকারি-বেসরকারি বিদ্যালয়ে প্রায় ৭ লাখ ৪১ হাজার ২৪২ জন শিক্ষার্থীর মাঝে বিতরণ করা হয়  ৬০ লাখ ৭৬ হাজার ৫৬০ টি বই।


জেলা প্রাথমিক ও শিক্ষা অফিসের সূত্রে জানা যায়, নতুন বছরে মাধ্যমিকে ৪২ লাখ ৬৮ হাজার ৬১২ টি নতুন বই বিতরণ করা হয়েছে ৩ লাখ ১৪ হাজার ৭৬৫ জন শিক্ষার্থীর মাঝে। 

 

এর মধ্যে মাধ্যমিক (বাংলা) স্তরে  ৩৫ লাখ  ৬ হাজার ৫৮৯টি বিতরণ করা হয়েছে ২ লাখ ৪২ হাজার ৫৫২শিক্ষার্থীর মাঝে। মাধ্যমিক স্তর (ইংরেজি) ১ হাজার ৩০৯ জন শিক্ষার্থীর মাঝে ২৩৭০টি বই।

 

দাখিল স্তরের ২৫ হাজার ৮৪ জন শিক্ষার্থীর জন্য ৩৬ লাখ ৬ হাজার ৩০৩টি বই, ইবতেদায়ী’র ৪২ হাজার ৫৭০ জন শিক্ষার্থীর জন্য ৩ লাখ ৩ হাজার ৩০০ বই। ভোকেশনাল (এসসসি) ৩ হাজার ২০০ শিক্ষার্থীর জন্য বই বিতরণ করা হয়েছে ৭১ হাজার ২৫০টি। এছাড়া ভোকেশনাল (দাখিল) ৫০ শিক্ষার্থীর মাঝে বিতরণ করা হয়েছে ৮০০ বই।

 

অন্যদিকে জেলার প্রাথমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহের ৪ লক্ষ ২৬ হাজার ৪৭৭ জন শিক্ষার্থীদের মধ্যে ১৮ লক্ষ ৭ হাজার ৯৪৮ টি বই বিনামূল্যে বিতরণ করা হয়। এর মধ্যে প্রাক-প্রাথমিক স্তরে ৫৬হাজার ৯৩২টি বই, প্রাথমিক বিদ্যালয় (বাংলা ভার্সন) ১ থেকে ৫ম শে্িরণর ১৮ লাখ ১ হাজার ৯৬ টি বই এবং  ইংরেজি ভার্সন (১ম-৫ম শ্রেণি) ৬ হাজার ৮৫২ বই।