সোমবার   ২২ এপ্রিল ২০১৯   বৈশাখ ৮ ১৪২৬   ১৬ শা'বান ১৪৪০

ধষর্ণের ঘটনা ধামাচাপা দিতে চেষ্টা : অবশেষে অভিযোগ, ধর্ষক আটক

প্রকাশিত: ১৫ এপ্রিল ২০১৯  

আড়াইহাজার (যুগের চিন্তা ২৪) : আড়াইহাজারে স্কুল ছাত্রী ধর্ষনের ঘটনা ধামাচাপা দিতে একটি প্রভাবশালী মহল ধর্ষিতার মাকে নানাভাবে চাপ দেয়াসহ হুমকি প্রদান করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এতে তিনি আইনী সহযোগিতা নিতে পারছিলেন না।

 

এক পর্যায়ে তিনি  ঘটনার ৪ দিনের মাথায় সকল বাধা উপেক্ষা করে সোমবার সকালে তিনি মেয়েকে নিয়ে থানায় হাজির হয়ে একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। পুলিশ অভিযোগের সূত্র ধরে পুলিশ ধর্ষক লিটনকে আটক করে। সে স্থানীয় প্রভাকরদী এলাকার তোঁতা মিয়ার ছেলে। 


তবে ধর্ষিতার মা সার্বিক নিরাপত্তার অভাবে ওই প্রভাবশালী মহলের নাম প্রকাশে অনিহা প্রকাশ করেন। তিনি আরো জানান, প্রভাবশালী ওই মহলটি থানার সেকেন্ড অফিসার এসআই ফাইজুর রহমানের মাধ্যমে থানায় বিচারের মাধ্যমে আপোষ করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।


ভুক্তভোগী ওই স্কুল ছাত্রী জানান, ১১ এপ্রিল বিকালে বাড়ির বাইরে তাকে একা পেয়ে সাইফুল নামে এক যুবক জোরপূর্বক তুলে নিয়ে যায়। পরে তাকে লিটন নামে অন্য এক যুবকের হাতে তুলে দিলে সে মুরগির পরিত্যক্ত একটি খামারে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। 


আড়াইহাজার থানার সেকেন্ড অফিসার ফাইজুর রহমান ধর্ষক লিটনকে গ্রেফতারের কথা স্বীকার করে জানান, বিবাদীদের এক ঘন্টা সময় দেওয়া হয়েছে যদি ধর্ষিতাকে বিয়ে করে তবেই লিটনকে ছাড়া যেতে পারে।


এ বিষয়ে কথা বলতে আড়াইহাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আক্তার হোসেনের এর মোবাইলে একাধিকবার ফোন দিলেও তাকেও পাওয়া যায়নি। 
 

এই বিভাগের আরো খবর