শুক্রবার   ১৮ অক্টোবর ২০১৯   কার্তিক ৩ ১৪২৬   ১৮ সফর ১৪৪১

জেলার প্রথম আইনজীবী হিসেবে বার কাউন্সিলের ট্রাইব্যুনালে এড.দিপু

প্রকাশিত: ৯ জুলাই ২০১৯  

স্টাফ রিপোর্টার (যুগের চিন্তার ২৪) : নারায়ণগঞ্জ জেলার প্রথম আইনজীবী হিসেবে বাংলাদেশের আইনজীবীদের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রণকারী সংস্থা বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের ট্রাইব্যুনাল-৬ এর বিচারকাজে ট্রাইব্যুনাল মেম্বার হিসেবে যোগ দিয়েছেন নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনজীবীর সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট আনিসুর রহমান দিপু। মঙ্গলবার (৯ জুলাই) দুপুরে আনিসুর রহমান দিপু নারায়ণগঞ্জ জেলার প্রথম আইনজীবী হিসেবে বার কাউন্সিলের ট্রাইব্যুনাল-৬ এর বিচারকাজে যোগ দেন। 

 

গত ১৫ মে বার কাউন্সিলের সচিব মো.রফিকুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এক চিঠির মাধ্যমে জানানো হয় তিন সদস্য বিশিষ্ট বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের ট্রাইব্যুনাল-৬ এ চেয়ারম্যান হিসেবে মো.মোকলেসুর রহমান এবং সদস্য হিসেবে অ্যাডভোকেট আনিসুর রহমান দিপু এবং এএফ মো.রুহুল এনাম চৌধুরী মিন্টুকে নিযুক্ত করা হয়েছে। 

 

আইনজীবীর জন্য ট্রাইব্যুনাল ও শাস্তি : ভুক্তভোগী কোনো ব্যক্তির অভিযোগ নিষ্পত্তির জন্য বার কাউন্সিলে কয়েকটি ট্রাইব্যুনাল আছে। একজন চেয়ারম্যান ও দুজন সদস্যের সমন্বয়ে একেকটি ট্রাইব্যুনাল গঠিত। অভিযোগ পাওয়ার পর ট্রাইব্যুনাল অভিযোগ তদন্ত করবেন এবং তদন্তে অভিযোগের সত্যতা প্রমাণিত না হলে তা নিষ্পত্তি করে দেবেন আর প্রমাণিত হলে সংশ্লিষ্ট আইনজীবীকে তিরস্কার করাসহ তাঁর সদস্যপদ স্থগিত অথবা সমিতি থেকে বহিষ্কার করার মতো শাস্তি প্রদান করার বিধান রয়েছে। তবে শাস্তির প্রকার নির্ভর করে অভিযুক্ত ব্যক্তি কত গুরুতর অপরাধ করেছে তার ওপর। তবে কেউ যদি মিথ্যা বা উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে অভিযোগ করে এবং তা প্রমাণিত হয়, তবে তাকে ক্ষতিপূরণ হিসেবে সংশ্লিষ্ট আইনজীবীকে ৫০০ টাকা দিতে হবে।

 

সংশ্লিষ্ট পক্ষ ট্রাইব্যুনালের রায়ের রিভিউ আবেদন করতে পারে। এ ছাড়া যেকোনো পক্ষ ট্রাইব্যুনালের রায়ের ৯০ দিনের মধ্যে হাইকোর্ট বিভাগে আপিল করতে পারবে।

 

নারায়ণগঞ্জ জেলার প্রথম আইনজীবী হিসেবে আনিসুর রহমান দিপুকে বার কাউন্সিলের কোন ট্রাইব্যুনালে সংযুক্ত করা হয়। অ্যাডভোকেট আনিসুর রহমান দিপু বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের জাতীয় পরিষদের অন্যতম সদস্য। এছাড়া তিনি নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির নির্বাচনে চারবার সভাপতি এবং তিনবার সাধারণ সম্পাদক হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন।
 

এই বিভাগের আরো খবর