সোমবার   ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আশ্বিন ১ ১৪২৬   ১৬ মুহররম ১৪৪১

আব্দুল হাই

ঈদে সেমাই আর পিঠা জাতীয় খাবার আমার খুব পছন্দের

প্রকাশিত: ১২ জুন ২০১৮   আপডেট: ২১ জুন ২০১৮

স্টাফ রিপোর্টার (যুগের চিন্তা ২৪) : জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আব্দুল হাই। ঈদ উদযাপন করতে এবার পরিবারের সবাইকে নিয়ে রূপগঞ্জে যাবেন বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। ঈদ উদযাপনে নানা স্মৃতি রোমন্থন করে যুগের চিন্তা ২৪’র ঈদ আড্ডায় আব্দুল হাই জানান, ছোটবেলায় আমরা ঈদের সালামী বা ঈদী নিতাম। দশ টাকা, বিশ টাকা সালামী তো তখন অনেক।

 

আমরাও আবার ছোটদের দিতাম। এখন আর সেটা নেই বললেই চলে। এখন আসলে আগের মতো সেই দিন নেই। ঈদে সব সময় মজাদার খাবারের প্রতি আমার আকর্ষণ। কিন্তু বয়স হয়ে যাওয়ার কারণে এখন আর পছন্দের খাবারও চাইলে খেতে পারি না। দুধ সেমাই, পাতা সেমাই, ঝুড়ি পিঠা, ফুল পিঠা এগুলো ঈদে আমার প্রিয় খাবার। ঈদের সময় বন্ধু বান্ধব-আত্মীয়-স্বজনদের সাথে আড্ডা দিয়েই সময় কেটে যায়। এছাড়া গ্রামের লোকজন আসে। তাদের সুখ-দুঃখের কথা শুনি। সময় কেটে যায়। ঈদের দিন ওভাবে কোথাও যাওয়া হয় না। এর পরদিন থেকে নানা জায়গায় যাওয়া হয়। ঈদের দিন বন্ধু-বান্ধবরা বাসায় আসে। ফুটবল বিশ্বকাপে আমি আর্জেন্টিনার সমর্থক। আমার স্ত্রী অবশ্য ফুটবল খেলা দেখে না। ম্যারাডোনা যখন খেলতো তখন থেকেই আমি ফুটবল নিয়মিত দেখি। আমার ঘরে ব্রাজিল সমর্থকও আছে। বাসায় তো সমর্থন নিয়ে বাসায়, আত্মীয়-স্বজনদের সাথে খুনসুটি হয়েই থাকে। পরিবার ছাড়া ঈদ উদযাপনের স্মৃতিচারণ করে আব্দুল হাই জানান, পরিবার ছাড়া ঈদে আসলে সে রকম আনন্দ নাই। ২০০৫ সালে একবার থাইল্যান্ডে আমার স্ত্রীকে চিকিৎসা করার জন্য ঈদ ওখানে করতে হয়েছিলো। তো সেখানে আমাদের প্রবাসী বাংলাদেশীদের সাথে ঈদের নামায আদায় করি। পুরো পরিবারকে খুব মিস করেছি। নির্বাচনী রাজনীতি আসলে ঈদের পর থেকে শুরু হবে উল্লেখ করে আব্দুল হাই বলেন, কেন্দ্র থেকে যেভাবে নির্দেশনা দেওয়া হবে সেভাবেই আসলে আমরা কাজ করবো। রাজনৈতিক বন্ধুবান্ধব, সহকর্মী, তৃণমূল নেতাকর্মী, সমর্থকসহ সকল শুভানুধ্যায়ীদের ঈদুল ফিতরের অগ্রীম শুভেচ্ছা জানিয়েছেন জেলা আওয়ামীলীগে সভাপতি আব্দুল হাই।

এই বিভাগের আরো খবর